রাজধানীর শ্যামবাজার এলাকা সংলগ্ন বুড়িগঙ্গা নদীতে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চডুবির ঘটনায় আরও এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ নিয়ে উদ্ধার হওয়া মরদেহের সংখ্যা দাঁড়াল ৩৪ জনে।

ডুবে থাকা ‘এমএল মর্নিং বার্ড’ লঞ্চটির পাশে মঙ্গলবার (৩০ জুন) বিকেলে তার মরদেহ ভেসে ওঠে। ওই ব্যক্তির নাম-পরিচয় এখনও জানা যায়নি।

ফায়ার সার্ভিস সদর দফতরের ডিউটি অফিসার এরশাদ হোসাইন এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, অজ্ঞাত ওই ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধারের পর সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

গতকাল সোমবার (২৯ জুন) সকালে ঢাকা-চাঁদপুর রুটের ময়ূর-২ নামের একটি লঞ্চের ধাক্কায় কমপক্ষে ৫০ যাত্রী নিয়ে ঢাকা-মুন্সিগঞ্জ রুটের মর্নিং বার্ড লঞ্চটি সদরঘাটের কাছে শ্যামবাজারের দিকে ডুবে যায়। ডুবে যাওয়া লঞ্চটি এখনও উদ্ধার করা যায়নি। উদ্ধার কার্যক্রম চলছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া নদীর পাশের একটি সিসি ক্যামেরার ভিডিওতে দেখা গেছে, বিশাল আকৃতির ময়ূর-২ ও অপেক্ষাকৃত অনেক ছোট মর্নিং বার্ড পাশাপাশি দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। খানিকটা এগিয়েই ময়ূর-২ মর্নিং বার্ডের ওপর উঠে যায় এবং উল্টে গিয়ে তলিয়ে যায় যাত্রীবোঝাই লঞ্চটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.